সংস্করণ
Bangla

ইচ্ছেটাই আসল রাজা, ফের বোঝালেন ইন্দোরের নরেন্দ্র

18th Nov 2015
Add to
Shares
2
Comments
Share This
Add to
Shares
2
Comments
Share

নরেন্দ্র সেন মধ্য প্রদেশের একটি ছোট্ট গ্রামে বড় হয়েছেন। স্কুল ছুটি পড়লে চলে আসতেন ইন্দোর। স্কুলের গন্ডি পেরিয়ে গেলেও কম্পিউটারে হাত খড়ি তখনও হয়নি। কিন্তু ছুটির সময় একটি ফটোকপির দোকানে কাজ করতে শুরু করেন। সেই সময় কাজের সূত্রেই প্রিন্টআউট আনতে যেতে হত সাইবার ক্যাফেতে। সেটাই ছিল কম্পিউটারের সঙ্গে প্রথম সাক্ষাৎ। নতুন এই জগতের টানে নরেন্দ্র সেখানেই কাজ চেয়ে বসেন। করিৎকর্মা লোক, তাই ম্যানেজ করতে সময় লাগেনি।

image


সাইবার ক্যাফেতে কাজ করার সময় একেবারে প্রাথমিক স্তর থেকে শেখা শুরু হয়। একে একে দক্ষ হয়ে ওঠেন। HTML এ বেশি উৎসাহ পান। ‘আমি কম্পিউটারের আশেপাশে বেশি সময় কাটাতাম। সবাই যখন নেট সার্ফ করত, আমি দেখতাম। তখনই মনে হয়েছিল কাজটা কঠিন নয়’, বলেন নরেন্দ্র। কাজ করতে করতে আরও অনেক কিছু শিখে যান। একসময় নিজেই ওয়েবসাইট তৈরি করতে শুরু করেন। ‘হঠাৎ ১৬০০ টাকার একটি প্রজেক্ট পাই। আমার জীবনের সবচেযে বড় ঘটনা ছিল ওটাই’, মনে করেন নরেন্দ্র। ধীরে ধীরে ওয়েব হোস্টিংগুলি করতে শুরু করলেন। টিকে থাকতে এবং নিজের সংস্থা তৈরি করতে মোটা অংকের টাকা রোজগারের জন্য এই পথকেই বেছে নেন নরেন্দ্র।

ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এবং অনলাইন ম্যানেজমেন্টে আইমাক্সগ্লোবালের সেটাই ছিল শুরু। ২০০০ মাঝামাঝিতে একেবারে অল্প সংখ্যক সার্ভিস প্রোভাইডারদের মধ্যে একটি ছিল এই সংস্থা। নরেন্দ্র ধীরে ধীরে ব্যবসা বাড়াতে লাগলেন এবং অন্যদের কাজও দিলেন। খুব দ্রুত সংস্থার উন্নতি হচ্ছিল। একসময় নিজের ডাটা সেন্টার রাখার মতো ক্ষমতা তৈরি হয়ে গেল। আর এভাবেই ২০১২ সালের মাঝামাঝিতে RackBank এর জন্ম। উন্নত মানের, নিরাপদ, ইমেল স্টেবিলিটি এবং নিয়ন্ত্রিত সার্ভার হোস্টিং সার্ভিস (কোনও সংস্থার ওয়েবসাইটের সার্ভার রাখার ব্যবস্থা) দেয় RackBank। হোস্টিং ছাড়াও, RackBank ম্যানেজড হোস্টিং এবং কলোকেশন সার্ভিসও দেয়। প্রায় আড়াই হাজার সার্ভিস ক্যাপাসিটি এবং ১০ হাজার স্কোয়ার ফুট ফুটস্পেস নিয়ে RackBank হল ভারতের দ্রুত বাড়তে থাকা ওয়েব এবং ইন্টারনেট সার্ভার হোস্টিং পরিকাঠামোর একটি। বেঙ্গালুরুর মতো শহরে রিয়েল এস্টেটের দাম আকাশ ছোঁয়া। তার চাইতে ইন্দোরে ডাটা সেন্টার খোলা বুদ্ধিমানের কাজ, বলেন নরেন্দ্র।

৩৫ জনের বেশি কর্মীদের নিয়ে টিম (১৫ জন অন্য একটি এজেন্সির) RackBank দ্রুত উন্নতি করছে। ‘ভারতে ২০টির মতো ডাটা সেন্টার রয়েছে। একটা ডাটা সেন্টার চালানো মোটেও সহজ নয়। আমাদের কর্মীরা সবাই দক্ষ। সতর্কতার সঙ্গে লোক নিয়েছি যাতে নির্ভরযোগ্য ব্যবসা গড়ে তোলা যায়’, বলেন নরেন্দ্র। চার্জ গ্রাহকের সাধ্যের মধ্যে রাখা RackBank এর বড় চ্যালেঞ্জ। নেটম্যাজিকের মতো একই মানের পরিষেবা, অথচ কম খরচে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেয় RackBank। এখনও নিজেদের পুঁজিতেই চলছে সংস্থাটি। পুঁজি সংগ্রহের জন্য বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে কথা চলছে।

ভারতের অনামী জায়গার এমন সাফল্যের গল্প উৎসাহজনক। এইরকম সাফল্যের গল্প যত শুনি, ততই বোঝা যায় উদ্যোক্তার ঢেউ সত্যিই মূল ধারায় এসে আছড়ে পড়ছে।

লেখক- জুবিন মেহতা, অনুবাদ- তিয়াসা বিশ্বাস
Add to
Shares
2
Comments
Share This
Add to
Shares
2
Comments
Share
Report an issue
Authors

Related Tags